রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৬:৫৪ অপরাহ্ন

রেসকোর্স ময়দানে শেখ মুজিবুর রহমানের ভাষণে বাঙালি পেয়েছে নতুন দিকনির্দেশনা-পলাশ

সংবাদ নারায়ণগঞ্জঃ- জাতীয় শ্রমিক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক কাউছার আহম্মেদ পলাশ বলেন, ২৫ মার্চ, ১৯৭১। সেদিন পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর একরাতের অভিযানে প্রাণ হারিয়েছিলেন প্রায় অর্ধলক্ষ মানুষ। ‘অপারেশন সার্চলাইট’ নামে সেই সেনা অভিযানের পরিকল্পনা হয়েছিল তারও এক সপ্তাহ আগে, ১৮ই মার্চ।

রাজনৈতিকভাবে সময়টা ছিল বেশ উত্তেজনাপূর্ণ। গণপরিষদের অধিবেশন স্থগিত করায় তখন বিক্ষোভে উত্তাল ঢাকা। তৎকালীন রেসকোর্স ময়দানে শেখ মুজিবুর রহমানের ভাষণে বাঙালি পেয়েছে নতুন দিকনির্দেশনা। ডামি রাইফেল নিয়ে ঢাকার রাস্তায় মিছিল করছেন ছাত্র-ছাত্রীরা। শহরে ওড়ানো হয়েছে স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা।

(২৫শে মার্চ) বৃহস্পতিবার বিকেলে ফতুল্লার আলীগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে ২৫শে মার্চ রক্তাক্ত গণহত্যা দিবসে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এসব কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, বিশ্বের দরবারে একমাত্র বাঙালী জাতি তাদের ভাষার জন্য রক্ত দিয়েছে। এই জাতি মাতৃভূমির জন্য রক্ত দিয়েছে ইতিহাস তা প্রমাণ করে। আজ এই দিনটি আমাদের মনে রাখতে হবে, সারা বাংলাদেশে একটা শ্রেণী ছোট্ট একটা ইস্যুতে দেশকে গরম করে ফেলেছে কিন্তু তাদের খবর নেই। এই ২৫শে মার্চ ওই পাক হানাদার বাহিনীরা এই বাংলাদেশের ওপরে রক্তাক্ত ইতিহাস সৃষ্টি করেছিলো।

পলাশ  বলেন, এক শ্রেণীর মানুষ আছে তারা আজ নতুন করে এক ষড়যন্ত্রের জাল ফেলছে। যখনই পাকিস্তানের নির্যাতন ও অত্যাচারের বিরুদ্ধে কোনো কর্মসূচি সামনে থাকে, তখনই তারা এমন একটা মিথ্যা ইসূ দিয়ে আমাদের দেশের প্রকৃত ইতিহাসকে দাবিয়ে রাখার জন্য ষড়যন্ত্রে লিপ্ত থাকে। আজ আমরা শপথ নেই, এই বাংলাদেশে কোন ষড়যন্ত্র আমরা করতে দেবো না। কোনো পাকিস্তানের প্রেতাত্মারা যেনো মাথা চাড়া দিয়ে না ওঠতে পারে এ জন্য আমাদের আরো সজাগ থাকতে হবে।

পলাশ আরো বলেন, আজ পাশ্ববর্তী  রাষ্ট্রের একটা বিষয় নিয়ে এতো হইচই। অথচ আমার দেশের মধ্যে আমার রক্ত, আমার দেশের মা বোনের ইজ্জত, এদেশের হাজার হাজার মানুষকে খুন করে রক্তের হলি খেলেছিলো ওই পাকিস্তান হানাদার বাহিনীরা। সেই খবর তাদের নাই। আজকের এই গনহত্যা দিবসকে আমরা আন্তজার্তিক গনহত্যা দিবস হিসেবে স্বীকৃতি চাই। এই দাবী দীর্ঘদিন যাবত আমরা করে আসছি।
Orion

জাতীয় শ্রমিক লীগ ফতুল্লা আঞ্চলিক শাখার সাধারণ সম্পাদক এস এম হুমায়ুন কবীর এর সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় শ্রমিক লীগ ফতুল্লা আঞ্চলিক শাখার সহ-সভাপতি হাজী আবুল হোসেন, ইউনাইটেড ফেডারেশন অব গার্মেন্টস ওয়ার্কার্স নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সভাপতি শাহাদাৎ হোসেন সেন্টু, সাধারণ সম্পাদক কবীর হোসেন রাজু, ফতুল্লা থানা লোড আনলোড শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, জেলা ইমারত নির্মাণ শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি গোলাম কিবরিয়া সাত্তার, ও জেলা শ্রমিক লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি এডঃ হুমায়ুন কবীর সহ প্রমুখ।

নিউজটি শেয়ার করুন...


© 2022 Sangbadnarayanganj.com - All rights reserved
Design & Developed by POPULAR HOST BD