রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৬:৫৮ অপরাহ্ন

পাগলায় চাঁদা না দেওয়ায় যুবককে মারধরঃ থানায় আমির গংদের বিরুদ্ধে অভিযোগ

সংবাদ নারায়ণগঞ্জঃ- চাঁদা চাওয়ার পর না দেওয়ায় ফেরদৌস নামের এক যুবককে মারধর করা অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় সন্ত্রাসী আমিরগংদের বিরুদ্ধে। ফেরদৌস পাগলা এলাকার হাবিবুর রহমানের ছেলে।
এ ঘটনায় ফেরদৌস বাদী হয়ে (৪ এপ্রিল) ফতুল্লা মডেল থানায় আমির (৩৫) পিতা- আলেক, ২। সম্রাট (৩৫), পিতা- সাহাবউদ্দিন, ৩। বিশু (৩৩),পিতা-অজ্ঞাত, ৪। সুমান (৩৪), পিতা- অজ্ঞাত, সর্ব সাং- পাগলা পপুলার ষ্টুডিও এদের নামে একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

ফেরদৌস জানান, দীর্ঘ দিন যাবৎ পাগলা এলাকায় ফুটপাতে ভেনের মধ্যে গেঞ্জির ব্যবসা করছি। কিন্তু কিছুদিন যাবত আমির, সম্রাট, বিশু ও সুমান বিভিন্ন সময়ে আমার নিকট এসে চাঁদা দাবী করে। এরপর চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় আমাকে ব্যবসা করতে দিবেনা এবং প্রাণ নাশের হুমকি প্রদান করে।

 

গত ১ মাস পূর্বে আমি এস.এম সুপার মার্কেটের সামনের ফুটপাতে গেঞ্জির গাড়ি নিয়ে পৌছাইলে উল্লেখিত সন্ত্রাসীরা আমার নিকট আসিয়া আবারও চাঁদা দাবী করে । এসময় আমি তাদেরকে চাঁদা দিতে রাজি না হলে আমাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালিসহ আমাকে মারধর করে। এবং আমার গাড়িতে থাকা অনুমান পঁচিশহাজার গেঞ্জি সহ আমার গাড়িটি নিয়া যায়। যাওয়ার সময় বলে আমি যদি এই বিষয়ে কাউকে জানাই তাহইলে আমাকে জীবনে শেষ করে দিবে।

এর কিছুদিন পর আমার গাড়ী ফেরত দিকে বলে আমার কাছ থেকে ১৫,০০০ টাকা নেয়। কিন্তু কয়েকদিন পার হয়ে গেলেও আমাকে গাড়ি ফেরত না দিয়ে আরো টাকা দাবি করে। নিয়া গেলেও আমাকে আমার গাড়ি ও মালামাল কোন টাই ফেরৎ প্রদান করেনাই। এরই গত ৩ এপিল সকাল অনুমান ১০.৩০ ঘটিকার আমি পুনরায় তাদের কাছে গিয়ে আমার গাড়ি ও মালামাল ফেরত চাহিলে আমির ও তার সহযোগীরা আমার নিকট আরো টাকা দাবি করে। এবং আমাকে মারধর করে বলে আবার যদি কখনো এই দিকে গাড়ি নিতে আশিশ তাহলে একে বারে মেরে বুড়িগঙ্গা নদীদে ফেলে দিব।

ফতুল্লা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রকিবুজ্জামান বলেন, এ বিষয়ে একটি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত অফিসার তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন...


© 2022 Sangbadnarayanganj.com - All rights reserved
Design & Developed by POPULAR HOST BD